সন্তানকে মানসিক অস্থিরতা থেকে মুক্ত রাখার ৫টি পরামর্শ

childআপনি কি জানেন ঠিক আপনার মতই মানসিক অস্থিরতা (mental stress) অনুভব করে আপনার সন্তান? মানসিক চাপের কারণ হতে পারে ভিন্ন, কিন্তু তা আপনার উপর যে প্রভাব ফেলে ঠিক একই রকম ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে আপনার সন্তানের উপরও। এই লেখায় কিছু বিষয় তুলে ধরেছি যা আপনার সন্তানকে মানসিক চাপ বা অস্থিরতা থেকে মুক্ত থাকতে সাহায্য করবে (child stress management)

১. পড়াশোনার ব্যাপারে অতিরিক্ত চাপ দিবেন না (stop overscheduling):

সন্তান সুশিক্ষিত হয়ে উঠুক তা সব বাবা-মা ই চান। কিন্তু এই পড়াশোনার জন্য অতিরিক্ত চাপ (overscheduling) প্রয়োগ কখনোই ভাল ফল বয়ে আনে না। সন্তানকে নিজের পছন্দমত পড়ার সময়টি নির্ধারণ করে নিতে বলুন। এছাড়া সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত স্কুল, বাসায় ফিরে টিউটর বা কোচিং, সন্ধ্যায় আবার পড়তে বসা ,রাতে ঘুমিয়ে আবার সকালে স্কুলের জন্য প্রস্তুতি এই আবর্তে ঘুরতে থাকে তাদের প্রতিদিনকার জীবন। তাই প্রতি সপ্তাহের বা প্রতিদিনের এমন কিছু সময় রাখুন যা তারা নিজেদের পছন্দমত কাটাতে পারে।

২. তাদের খেলাধুলায় উৎসাহ দিন (make time for play):

খেলাধুলা শুধুমাত্র আনন্দই দেয় না, বরং জীবনের অনেক গুরুত্বপূর্ণ কিছু বিষয় সহজে বুঝে নিতে সাহায্য করে আপনার সন্তানকে। তাই তাদের খেলার জন্য কিছুটা সময় দিন। ছোটরা খেলাধুলা করলেও কম্পিউটার আর স্মার্ট ফোনের কল্যাণে অধিকাংশ টিনএজাররা আজকাল খেলা বিমুখ হয়ে গেছে। সারাদিন ক্লাস করে আসার পর কম্পিউটার বা মোবাইলের গেমসে মুখ গুঁজে থাকলে শারীরিক এবং মানসিক ক্ষতির (depression in children) সম্ভাবনা বেড়ে যায় । তাই আপনার টিনএজ সন্তানকে খেলাধুলার ব্যাপারে উৎসাহ দিন।

৩. সন্তানের পর্যাপ্ত ঘুম নিশ্চিত করুন (make sleep a priority):

মানসিক অস্থিরতা (mental stress) কমানোর সবচেয়ে কার্যকর উপায় হচ্ছে ঘুম। একদিকে ঘুম যেমন মানসিক অস্থিরতা কমায়, অপরদিকে প্রয়োজনের চেয়ে কম ঘুম তা বাড়িয়ে তোলে। আপনার সন্তান যেন ৭-৯ ঘণ্টা নিশ্চিন্তে ঘুমাতে পারে তা নিশ্চিত করুন। ঘুমের ব্যাঘাত ঘটায় এমন কিছু যেমন মোবাইল, টিভি ইত্যাদি তার রুম থেকে সরিয়ে নিন।

৪. ভুল থেকে শিক্ষা গ্রহণের ব্যাপারে তাদের উৎসাহ দিন (deal with mistakes):

ভুল করে ফেলার ভয় আপনার সন্তানের মানসিক চাপের (child stress) অন্যতম কারণ হতে পারে। তাদের প্রত্যেক ভুলের জন্য শাস্তি দিবেন না। কারণ তারা এখনো ছোট, কোন কাজ কিভাবে করতে হয় এব্যাপারে তাদের ধারণা না থাকাই স্বাভাবিক। আপনার সন্তানকে শেখান কিভাবে নিজের ভুলগুলো শুধরে (dealing with mistakes) নিতে হয়। এতে পরবর্তীতে সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণের ব্যাপারে তারা দক্ষ হয়ে উঠবে।

৫. মানসিক চাপমুক্ত রাখুন নিজেকেও (manage your own stress):

সন্তানকে মানসিক অস্থিরতা থেকে মুক্ত করার পাশাপাশি নিজেকেও মানসিক চাপ মুক্ত রাখুন (coping with stress) । আপনি যখন মানসিক চাপে থাকেন তখন পরিবর্তন আসে আপনার আচরণেও যা আপনার সন্তান শিখে নিতে পারে। তাই সন্তানদের সামনে নিজেকে শান্ত রাখার চেষ্টা করুন।

এধরণের আরও লেখা পড়ুনঃ

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।