প্রাকৃতিক উপায়ে শরীরের অতি গুরুত্বপূর্ণ হরমোন টেস্টোসটেরন বাড়াবেন যেভাবে

How To Increase Testosterone Naturally

testosterone
পুরুষ এবং মহিলা উভয়ের জন্যেই টেস্টোসটেরন (testosterone) অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি হরমোন (hormone)। এটি আমাদের শরীরের নানা ক্রিয়া প্রক্রিয়া সঠিক রাখে। শরীরে টেস্টোসটেরন হরমোনের মাত্রা কম হলে হাড়ের গঠন (structure of bone) দুর্বল হয়ে যায়, যৌন ক্ষমতা (sexual power) হ্রাস পায়, চুল পড়তে পারে (hair fall), শরীরে দুর্বলতা অনুভব হয়। এছাড়া সৃষ্টি হতে পারে মানসিক অবসাদের। পরিসংখ্যান বলছে, কিছু নিয়ম মেনে চললে খুব সহজেই প্রাকৃতিকভাবে (naturally)বাড়িয়ে নেয়া যায় টেস্টোসটেরন হরমোনের মাত্রা। জেনে নিই সহজ সে উপায়গুলো।

১) ওজন নিয়ন্ত্রনে রাখুন(control your weight)

গবেষকদের মতে, অতিরিক্ত ওজনের ব্যক্তিদের শরীরে টেস্টোসটেরন হরমোনের মাত্রা কম থাকে। তাই আপনার ওজন যদি অতিরিক্ত (over-weight) হয়ে থাকে তবে তা নিয়ন্ত্রনের জন্যে আজই পদক্ষেপ নিন।

২) পর্যাপ্ত পরিমাণে ভিটামিন ডি গ্রহণ করুন(take adequate amount of vitamin D)

পর্যাপ্ত পরিমাণ ভিটামিন ‘ডি’ সমৃদ্ধ খাবার (সামুদ্রিক মাছ, ডিম) খেলে শরীরে টেস্টোসটেরন হরমোনের মাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে ২০ শতাংশ বেশি থাকে। সূর্য এর রশ্মি ভিটামিন ‘ডি’(vitamin D) এর অন্যতম উৎস। দৈনিক ১৫-৩০ মিনিট সূর্যের রশ্মি গায়ে মাখুন।

৩) চিনির পরিমাণ কমিয়ে আনুন (decrease your sugar intake)

অতিরিক্ত চিনি আপনার শরীরের ইনসুলিন(insulin) এর মাত্রা বাড়িয়ে দেয়, যার ফলে কমে যেতে পারে আপনার টেস্টোসটেরন হরমোন। তাই অতিরিক্ত চিনি গ্রহণ থেকে(increased sugar intake) বিরত থাকুন।

৪) ব্যায়াম করুন(do exercise)

ব্যায়াম টেস্টোসটেরন হরমোন বৃদ্ধির আরেকটি কার্যকর পদ্ধতি। প্রথম প্রথম হালকা ব্যায়াম(exercise) দিয়ে শুরু করলেও পরবর্তীতে ভার উত্তোলন  ধরণের ব্যায়াম গুলো বেছে নিন। তবে ভার উত্তোলনের পূর্বে অবশ্যই ভাল কোন প্রশিক্ষকের সাথে আলোচনা করে নিবেন।

৫) খাবারের তালিকায় পরিবর্তন আনুন(take foods that boost testosterone)

টেস্টোসটেরন হরমোন বৃদ্ধির জন্যে ঐ ধরণের কিছু খাবার খেতে হবে। যেমনঃ বাদাম, ওলিভ অয়েল, ডিমের কুসুম, ওমেগা ৩ ফ্যাটি এসিড। এছাড়া জিংক টেস্টোসটেরন(testosterone) হরমোন দ্রুত বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। এক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শে জিংক সাপ্লিমেন্ট খেতে পারেন।

৬) পর্যাপ্ত পরিমাণ ঘুমান(sleep sufficiently)

দৈনিক ৭-৮ ঘণ্টা না ঘুমালে শরীরের অন্যান্য সমস্যা সৃষ্টির পাশাপাশি আপনার টেস্টোসটেরন হরমোনের মাত্রাও কমতে শুরু করেছে। তাই অবশ্যই প্রতিদিন টানা ৭-৮ ঘণ্টা ঘুমিয়ে নিন।

৭) দুশ্চিন্তার মাত্রা কমান (stop tension)

কোন কারণে অতিরিক্ত দুশ্চিন্তাও(tension) টেস্টোসটেরন হরমোন কমিয়ে আনে। তাই খুব বেশি মানসিক চাপে থাকলে গান শুনুন, বন্ধুদের সাথে ঘুরে আসুন। মোট কথা হাসিখুশি থাকুন।

শুরুতেই যে সমস্যাগুলোর কথা বলা হয়েছে, দীর্ঘদিন ধরে যদি আপনার সেগুলো থেকে থাকে তবে ডাক্তারের সাথে দেখা করে আজই আপনার রক্তে টেস্টোসটেরন এর মাত্রা পরীক্ষা করিয়ে নিন। আর উপরের নিয়মগুলো মেনে চলে সহজে বাড়িয়ে নিন টেস্টোসটেরন(testosterone) হরমোন এর মাত্রা। জানেনই তো “Prevention is better than cure.”

পরামর্শ.কম এ স্বাস্থ্য ও রূপচর্চা বিভাগে প্রকাশিত লেখাগুলো সংশ্লিষ্ট লেখকের ব্যক্তিগত মতামত ও সাধারণ তথ্যের ভিত্তিতে লিখিত। তাই এসব লেখাকে সরাসরি চিকিৎসা বা স্বাস্থ্য অথবা রূপচর্চা বিষয়ক বিশেষজ্ঞ পরামর্শ হিসেবে গণ্য করা যাবে না। স্বাস্থ্য/ রূপচর্চা সংক্রান্ত যেকোন তথ্য কিংবা চিকিৎসার জন্য বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের/বিউটিশিয়ানের শরণাপন্ন হোন।

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।