আপনার ঘরটিকে সাজিয়ে তুলুন মনোমুগ্ধকরভাবে

living roomআপনি আপনার ঘরটি সুন্দর করে সাজাতে চান? কিন্তু এটাও চান যে সেটা আপনার বাজেটের মধ্যে হোক? সেক্ষেত্রে ছোটখাটো কিছু পরিবর্তন আর অল্পকিছু নতুন জিনিসপত্র যোগ করেই আপনি পেতে পারেন একটি এমন সুন্দর ঘর যেখানে প্রবেশ করার সাথে সাথেই আপনার মন ভালো হয়ে যাবে।

যেভাবে কম খরচে আপনার ঘরের চেহারা বদলে দিতে পারেনঃ

  • প্রথমে আপনার ঘরের প্রবেশদ্বারে একটু পরিবর্তন আনুন। প্রবেশদ্বারটিকে একটু নতুন করে সাজান, একটু রং এর ছোঁয়া দিতে পারেন। সাথে দরজার উপরে বাহারি ফুল অথবা সৌন্দর্য বর্ধনকারী গুল্ম বা অর্কিড লাগাতে পারেন।
  • পেইন্টিং বা রঙ আপনার বাড়িতে একটি দ্রুত পরিবর্তন দিতে পারে। আপনার পছন্দসই রং বেছে নিয়ে ঘরটা পেইন্ট করে ফেলুন। সারা বাড়ি রঙ করাটা একটু ব্যয় বহুল হয়ে যায়, তাই আপনি আপনার ঘরের ভেতরের দেয়ালগুলো রঙ করে ফেলুন। এতে করে ঘরে ঢুকেই আপনার মন ভালো হয়ে যাবে।
  • জানালার পর্দাগুলো বদলে ফেলুন। নতুন আর একটু উজ্জ্বল রঙের পর্দাগুলো আপনার ঘরের চেনা চেহারা বদলে দেবে, আপনাকে যে কেবল দামী পর্দা দিয়ে ঘর সাজাতে হবে এমনটা নয়। কম খরচে অনেক রুচিসম্মত পর্দা বাজারে কিনতে পাওয়া যায়।
  • ঘরের ফুলদানীগুলো খালি না রেখে তাতে তাজা ফুল রাখুন, দেখবেন ঘরের আবহাওয়া বদলে যাবে। তাজা ফুল দিয়ে ঘর সাজালে ঘরের পরিবেশ এমনি তরতাজা থাকবে।
  • ঘরের দেওয়ালগুলো খালি করে রাখবেন না। দেওয়ালে আপনার পছন্দমতো কিছু ছবি লাগিয়ে দিন, অল্পকিছু ছবি লাগানোতে আপনার ঘর একটি একটি নতুন রূপ পাবে।
  • ঘরের আসবাবপত্রগুলো নতুন করে সাজান। যেমন সোফা সেটটা সরিয়ে জানালার পাশে রাখতে পারেন আবার আলমিরা বা বুকশেল্ফটা আগের জায়গা থেকে সরিয়ে অন্য জায়গায় রাখতে পারেন। এতে আপনার একটু পরিশ্রম হবে ঠিকই কিন্তু আপনার ঘর পাবে একটি নতুন সাজ।
  • আপনার সোফার কুশন গুলো বদলে ফেলুন। কিছু রং বেরং এর কুশন কভার লাগিয়ে দিন তাতে। এখন আবার বিভিন্ন আকৃতির কুশন পাওয়া যায় যেগুলো আপনার ঘরে বৈচিত্র আনতে সাহায্য করবে।
  • ঘরে বৈচিত্র্য আনতে একটি শেলফে কিছু অ্যান্টিক কালেকশনের জিনিসপত্র রাখতে পারেন। ঘরের মাধুর্য এতে বহুগুণ বৃদ্ধি পাবে।

নিজের ঘরটিকে একটু সুন্দরভাবে সাজিয়ে ঘুছিয়ে নিতে আপনাকে প্রফেশনাল ইন্টেরিওর ডিজাইনারের প্রয়োজন নেই। আপনার নিজের পছন্দ মতো করে ঘরকে নতুন করে সাজান। তাতেই আপনার প্রতিদিনের চেনা ঘরটি সুন্দরভাবে সেজে উঠবে।

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।