যেভাবে ভালো মা হয়ে উঠবেন

good-mother

মা তো যে কেউ হতে পারে। কিন্তু একজন ভালো মা হয়ে উঠা সহজ কাজ নয়। হ্যাঁ পৃথিবীর সকল মা ই সন্তানের মঙ্গল কামনা করে সন্তানের ভালো চেয়ে নিজের সব চাওয়া পাওয়া বিসর্জন দেয়।

কিন্তু ভাববার বিষয় মায়ের করা ত্যাগগুলো কি সত্যিকার অর্থেই সন্তানের কাজে আসছে বা সন্তান মায়ের ত্যাগের মূল্যায়ন করতে পারচ্ছে।

আপনি একজন ভালো মা তখনই হয়ে উঠবেন যখন আপনার সন্তান আপনাকে বুঝতে পারবে আর একই ভাবে আপনি ও আপনার সন্তানের সবটা বুঝতে পারবেন।

সন্তানের সুন্দর ভবিষ্যৎ নিশ্চিত করতে মায়েদের ভালো মা হয়ে উঠা জরুরী।

ভালো মা হয়ে উঠার কিছু পরামর্শঃ

* সন্তানকে বাধ্য করবেন না আপনাকে বুঝতে, বরং আপনি আপনার সন্তানকে বুঝতে চেষ্টা করুন। তাদের ভালোলাগা খারাপলাগা আর পছন্দের সাথে নিজেকে মানিয়ে নিন, যতোটা পারেন তাদের সময় দিন।

দেখবেন আপনার সন্তানই আপনার ভালো খারাপের মূল্যায়ন করবে।

* মায়েদের ভালোবাসার আর আদর স্নেহের প্রতিক হিসেবে ধরা হয়। আর একজন মা কে ভালো মা হয়ে উঠতে সন্তানকে ভালোবাসার কোন বিকল্প নেই।


আরো পড়ুন– বাবা মা হিসেবে যে ভুলগুলো অবশ্যই এড়িয়ে চলবেন


মায়ের ভালোবাসা হয় নিঃস্বার্থ ভালোবাসা। সন্তানের কাছে কোন কিছুর আশা না রেখে সন্তানকে ভালবাসুন। বিনিময়ে আপনার সন্তান কখনোই আপনাকে নিরাশ করবে না।

* মা আর সন্তানের সম্পর্ক কোন সাজিয়ে গুছিয়ে উপস্থাপন করার মত সম্পর্ক নয়। তাই নিজেকে নিখুঁত আর গুছিয়ে সন্তানের সাথে সময় কাটানোর কোন মানে হয় না।

বর্তমান সময়ের মায়েরা সন্তানের ভালো চেয়ে নিজেদের এমনভাবে সন্তানের সামনে তুলে ধরেন যে মায়ের আসল ভালোবাসা আর মমতার তাদের কখনোই পরিচয় ঘটেনা। এটি অবশ্যয় ভালো মায়ের কাজ নয়।

* আপনার সন্তান যখন কোন বিষয়ে আপনার কাছে প্রশ্ন করবে বা জানার আগ্রহ প্রকাশ করবে তখন আপনি ও সমান আগ্রহ নিয়ে তার কথা শুনুন। হাতের কাজগুলো বরং অন্য সময়ের জন্য রেখে দিন।

কেননা আপনার সন্তান যদি এটা ভেবে নেই যে তার চেয়ে আপনার কাজ বেশী অগ্রাধিকার পাচ্ছে তাহলে সেটা তার স্বাভাবিক মানসিক বিকাসে নিঃসন্দেহে বাঁধা দান করবে।


আরো পড়ুন– আপন সৌরভে নিজের সংসার মাতিয়ে তুলুন


* ভালোবাসার মূল্যায়ন আর টাকার মূল্যায়ন এক নয়, তাই আপনার সন্তানকে সময় দিন।

মনে রাখবেন আপনার বাচ্চার সুষ্ঠু বিকাসে আপনার অবদান সবচেয়ে বেশী, তাই সন্তানের সাথে সময় কাটান যতোটা পারেন তাদের আনন্দ দিন।

দামী উপহার কিংবা অর্থ আপনার অভাব কখনোয় পূরণ করতে পারবেনা।

আমাদের পুরো জীবনটাই একটি শিক্ষাক্ষেত্র, তাই সন্তানের উপর জোর করে কিছু শিখার জন্য চাপিয়ে দেবেন না।

মা হিসেবে আপনি প্রতিদিন অল্প অল্প করে আপনার সন্তানের জীবনের পথটা সুন্দর করে সাজিয়ে দিতে পারেন।


সম্পর্কিত পোস্ট: