ঘরেই তৈরি করুন সর্দি উপশমকারী মধু-লেবুর সিরাপ  

lemon-pickleএকদিকে চলছে গ্রীষ্মের তীব্র গরম। আরেকদিকে চলছে সর্দি-কাশির প্রকোপ। কারণ বাইরের আবহাওয়া যেহেতু শুষ্ক, তাই ধূলো-বালির সমস্যাটিও বেশি। আর এ ধূলোবালি নাকে-মুখে প্রবেশের ফলেই সর্দি-কাশি আর জ্বরের মতো বিরক্তিকর শারীরিক অসুস্থতাগুলো দেখা দেয়। ছুটতে হয় ডাক্তার আর ওষুধের দোকানে। যাই হোক, সর্দি-কাশিকে এড়ানোর উপায় যেহেতু নেই, তাই আক্রান্ত হলে প্রতিষেধক তো চাই। আর এক্ষেত্রে আপনার সাহায্যকারী হতে পারে আপনার বাসাতেই থাকা কিছু ঘরোয়া উপাদান। চলুন জেনে নেয়া যাক মধু আর লেবুজাতীয় ফল দিয়ে সিরাপ তৈরির পদ্ধতি, যা আপনাকে মুক্ত করবে সর্দি-কাশির সমস্যা থেকে।

যা যা লাগবে

– মধু
-সাইট্রাস ফল যেমন-লেবু, কমলাজাতীয় ফল
– পুদিনা পাতা
– আদা, ( সাথে দারুচিনি, এলাচদানা যোগ করতে পারেন)

সিরাপ তৈরির পদ্ধতি

(১) প্রথমে একটি লেবুকে কয়েক টুকরো করুন ও সেগুলোকে একটি জার বা বয়ামের ভেতরে রাখুন। খেয়াল রাখবেন লেবুটির খোসাতে ছত্রাক আছে কিনা।

(২) এরপর এতে আদা কুচি যোগ করুন।

(৩) জারের ভেতর এবার পর্যাপ্ত পরিমাণে মধু যোগ করুন। একটি লম্বা চামচ বা পরিষ্কার কাঠিজাতীয় জিনিস দিয়ে এমনভাবে মিশ্রণটিকে নাড়তে থাকুন যেন লেবুর টুকরো, আদাকুচি ও মধু একদম মিশে যায়।

(৪) মেশানোর ৩-৪ ঘন্টার মাঝে সিরাপটি খাবার উপযোগী হয়ে যাবে। মধু লেবু থেকে এর সবটুকু রস বের করে নেয়। তাই মিশ্রণটিকে আরো একবার ভালোভাবে নাড়িয়ে দিন, যেন মধু ও লেবুর রস ভালোভাবে মিশে যায়।

তৈরি হয়ে গেল সর্দি-কাশি নিরাময়ের জন্য ঘরোয়া উপাদানে তৈরি সিরাপ।

সংরক্ষণ

সিরাপটিকে এরপর ফ্রিজে রেখে সংরক্ষণ করতে পারেন। স্বাভাবিকভাবে মধু দিয়ে তৈরি এ সিরাপ ২-৩ মাস পর্যন্ত ভাল থাকে।