সুস্থ আর সতেজ থাকতে রোজার সময় যে ৫ টি বিষয় নারীদের মনে রাখা জরুরী

528863_100682023414088_130637406_nরোজার মাসটাতে হঠাৎ আমাদের প্রতিদিনের খাবার তালিকাটা বদলে যায়, আর সাথে বদলে যায় আমাদের খাদ্যাভ্যাস। কিন্তু নিজের স্বাস্থ্য রক্ষায় পরিবারের আর সবার পাশাপাশি নারীদের নিজেদের জন্য ইফতার আর সেহরির খাদ্য তালিকাটা সচেতনভাবে বানিয়ে নিতে হয়। যাতে করে রোজার মাসটাও নিজে সুস্থ থেকে পরিবারের অন্য সদস্যগুলোর ভালো থাকার দায়িত্বটা ঠিকঠাক পালন করতে পারেন।

রোজার সময়টিতে যে পাঁচটি বিষয় মনে রাখবেনঃ

১) সেহরিতে প্রোটিন এবং ফাইবার যুক্ত খাবার রাখুনঃ

সেহরিতে অবশ্যই বেশি বেশি প্রোটিন ও ফাইবার যুক্ত খাবার রাখার চেষ্টা করুন। যেমন প্রোটিন হিসেবে ডিম, দুধ, পনির, দই ও মাছ ইত্যাদি আর ফাইবার এর জন্য একটু ফল, সবজি বাদাম রাখতে পারেন। এটি আপনার সারাদিনের পুষ্টি চাহিদা পূরণ করবে।

২) ইফতারিতে বেশি খাওয়ার অভ্যাস ত্যাগ করুনঃ

সারাদিনের রোজা শেষে ইফতারিতে আমরা সবাই একটু বেশি পরিমাণ খেয়ে ফেলি, এটা আমাদের শরীরের জন্য ভীষণ ক্ষতিকর। ইফতারিতে ভাজা পোড়া  বাদ দিয়ে একটু ক্যালোরি সমৃদ্ধ খাবার খেলে  ভালো হয়। একটু ফল, স্যালাড বা একবাটি স্যুপ  আপনার সারাদিনের খাদ্যঘাটতি জনিত ক্যালোরি চাহিদা পূরণ করে।

৩) খেজুর ও কাজুবাদাম খাবারের তালিকায় যোগ করুনঃ

রোজার পুরো মাসটায় আমরা আমাদের খাবারের তালিকায় বেশী করে খেজুর আর বাদাম রাখতে পারি। এই দুটি খাদ্যই শর্করা এবং ক্যালোরির বড় উৎস যা আমাদের শরীরে সারাদিনের ক্লান্তি দূর করে। বিকল্প হিসেবে  আমরা ইফতারিতে কাজু বাদামের হালুয়া রাখতে পারি।

৪) নিজেকে সূর্য ও রোদ থেকে দূরে রাখুনঃ

রোজার দিনগুলোই ভালো থাকতে যতটুকু সম্ভব সূর্য আর রোদ থেকে দূরে থাকুন। সারাদিন খাদ্য ও পানি পান করা থেকে বিরত থাকার ফলে এমনিতেই আমাদের শরীরে যথেষ্ট পানি ঘাটতি দেখা যায় আর বাইরে ঘোরাঘুরি এই সমস্যা আরো বাড়িয়ে দেয়।

৫) নিজের শারীরিক সুস্থতা নিশ্চিত করে রোজা রাখুনঃ

রোজা রাখার সময় সবথেকে জরুরী ব্যাপার হল নিজের শারীরিক সুস্থতা নিশ্চিত করে নেওয়া। গর্ভবতী নারী এবং স্তন্যদানকারী নারীদের রোজা রাখার আগে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়া দরকার। সুস্থ শরীর আর মন রোজার আনন্দ আর বাড়িয়ে দেই। আর সেদিকে লক্ষ্য রেখেই রোজার দিনগুলোতে নিজেদের বাড়তি যত্ন রাখাটা দরকার।

[ছবি সংগৃহীত- bw-06.blogspot.com]

পরামর্শ.কম এ স্বাস্থ্য ও রূপচর্চা বিভাগে প্রকাশিত লেখাগুলো সংশ্লিষ্ট লেখকের ব্যক্তিগত মতামত ও সাধারণ তথ্যের ভিত্তিতে লিখিত। তাই এসব লেখাকে সরাসরি চিকিৎসা বা স্বাস্থ্য অথবা রূপচর্চা বিষয়ক বিশেষজ্ঞ পরামর্শ হিসেবে গণ্য করা যাবে না। স্বাস্থ্য/ রূপচর্চা সংক্রান্ত যেকোন তথ্য কিংবা চিকিৎসার জন্য বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের/বিউটিশিয়ানের শরণাপন্ন হোন।

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।