সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে যে ৫টি কারণে পেঁপে খাবেন

Health Benefits Of Papayaপেঁপে (papaya) একটি সুস্বাদু আর লোভনীয় ফল, এই ফলের স্বাস্থ্য উপকারিতা বলে শেষ করা যাবেনা। পেঁপের পুষ্টি উপাদান আমাদের শরীরের নানাবিধ সমস্যা সমাধানে ভূমিকা। পেঁপের আরেকটি গুণ হল এই ফলটি যদি আপনি আপনার ত্বকের যত্নে (skincare) ব্যবহার করেন তাহলে হলুদ রঙের এই সুন্দর ফলটির মতো আপনি ও সুন্দর হয়ে উঠবেন।

সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে যে ৫টি কারণে পেঁপে খাবেন ( (health benefits of papaya)

১) হজম শক্তি বাড়াতে (helps in digestion)

হজম প্রক্রিয়া সঠিক উপায়ে পরিচালিত করতে পেঁপের জুড়ি নেই। পেঁপেতে উপস্থিত এনজাইম পাকস্থলীতে খাবার হজমে সাহায্য করে। এরপর যখনই পেতে খাবার হজমজনিত সমস্যা হবে উপশমকারী হিসেবে পেঁপে গ্রহণ করুন।

২)পেঁপে পাতা ক্ষুধা বৃদ্ধি ও পিরিয়ডের ব্যথা প্রতিরোধক (increase the appetite and cures menstrual pain)

পেঁপে পাতা ক্ষুধা বৃদ্ধি কারক। পেঁপের পুষ্টি উপাদান নারীদের জন্যও উপকারী। পেঁপের পাতা নারীদের পিরিয়ডের ব্যথার জন্য প্রতিষেধক হিসেবে কাজ করে। কিছু পেঁপে পাতা, তেঁতুল আর লবণ পানির সাথে গ্রহণ করলে পিরিয়ডের ব্যথা উপশম হয়।

৩) পেঁপে ওজন হ্রাসে সাহায্য করে (used for weight loss treatment)

পেঁপের লো ক্যালোরি, খনিজ উপাদান আর প্রয়োজনীয় পুষ্টিমান আপনার ওজন হ্রাসে সাহায্য করবে। পেঁপে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আপনার শরীরের চর্বি কমিয়ে আপনাকে একটি আকর্ষণীয় শারীরিক গঠনে নিয়ে আসে তাই প্রতিদিনের নাশতার টেবিলে সাচ্ছন্দে পেঁপে রাখতে পারেন।

৪) ক্যান্সার প্রতিরোধক (anti cancer properties)

পেঁপেতে উপস্থিত ক্যারোটিন আমাদের ফুসফুস ও মুখগহ্বরের ক্যান্সার (cancer) প্রতিরোধ করে। পেঁপের পুষ্টিমান ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ক্যান্সার নিরাময়ের জন্য অপরিহার্য।

৫) পেঁপে হৃদরোগের ঝুঁকি কমায় (protects heart)

পেঁপের পটাশিয়াম শরীরে রক্তের প্রবাহ ও সঠিক রক্ত চাপ (blood pressure) বজায় রাখে, এটি শরীরের ভেতরের সোডিয়াম এর মাত্রা সঠিক রাখে। পেঁপের পুষ্টি উপাদান হৃদরোগীদের জন্য বিস্ময়কর অবদান রাখে।

পাকা ও কাঁচা উভয় প্রকারের পেঁপেই আমাদের স্বাস্থ্যর জন্য ভীষণ উপকারী। আমরা যদি কাঁচা পেঁপে সালাদ হিসেবেও ব্যবহার করি তাহলে আমাদের সুস্বাস্থ্যর জন্য একটি অনেক বড় পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।