প্রথম চাকরি নির্বাচনে যেসব বিষয়ে লক্ষ্য রাখবেন

first jobপড়াশোনার শেষ ধাপে এসে সবাই চিন্তিত হয়ে পড়েন ক্যারিয়ার নিয়ে। জীবনের প্রথম চাকরি সমগ্র জীবনের বাকি কার্যক্রমের উপরও প্রবলভাবে প্রভাব বিস্তার করে। তাই প্রথম চাকরি নির্বাচনের আগে কিছু বিষয়ে স্বচ্ছ ধারণা রাখা প্রয়োজন।

  • প্রথমে সিদ্ধান্ত নিন ঠিক কোন ধরণের চাকরি আপনার জন্য উপযুক্ত হবে। আপনার শারীরিক, মানসিক এবং শিক্ষাগত যোগ্যতার সাথে খাপ খায় এমন চাকরিই তালিকার প্রথমে রাখুন।
  • এমন কিছু কোম্পানির তালিকা তৈরি করুন যাদের হয়ে আপনি কাজ করতে চান। পড়াশোনা শেষ করার বছর খানেক আগে থেকে এসব কোম্পানির পণ্য, লক্ষ্য এবং উদ্দেশ্য, নিয়োগ পদ্ধতি সম্পর্কে বিস্তারিত খোঁজ নেয়া শুরু করুন। দীর্ঘদিন এসব বিষয়ের উপর নজর রাখলে নিজের অজান্তেই প্রচুর জ্ঞান অর্জন করে ফেলবেন কোম্পানিগুলো সম্পর্কে , যা আপনার কাঙ্ক্ষিত চাকরি পেতে আপনাকে সাহায্য করবে।
  • নতুন গ্রাজুয়েটরা সাধারণত প্রথমদিকে নিচু পদমর্যাদার চাকরিই পেয়ে থাকে। পদমর্যাদা নিয়ে শঙ্কিত না হয়ে ভাবুন, আপনার কাজটি কোম্পানির ঠিক কোন ক্ষেত্রে উন্নতিতে সাহায্য করবে। যেমন কাজই হোক ধৈর্য, অধ্যবসায়, এবং নিষ্ঠার সাথে তা সম্পন্ন করুন। এই গুণগুলোই ধীরে ধীরে আপনাকে উন্নতির শিখরে নিয়ে যাবে।
  • চাকরির সাথে কোম্পানি প্রদত্ত আনুষঙ্গিক সুবিধার দিকে লক্ষ্য রাখুন। কিছু প্রতিষ্ঠান বাৎসরিক স-বৈতনিক ছুটি, অসুস্থতাজনিত ছুটি, বাৎসরিক বোনাস, চিকিৎসা বীমা ইত্যাদি সুবিধা প্রদান করে। আবার কিছু কোম্পানি বাসস্থান সুবিধা, নিজস্ব পরিবহণ ব্যবস্থা, ভ্রমণ ভাতা ইত্যাদি প্রদান করে। আপনার চাহিদার সাথে সঙ্গতিপূর্ণ কোম্পানিই এই ক্ষেত্রে নির্বাচন করুন।
  • যে কোম্পানিতে পরবর্তীতে চাকরি করতে চান, ছাত্র থাকা অবস্থাতেই খোঁজ নিন তাদের কোন ইন্টার্নশিপ প্রোগ্রাম আছে কি না। এতে করে আপনি অনেক আগে থেকেই কাঙ্ক্ষিত কোম্পানির পরিবেশ, কাজের ধরণ ইত্যাদি সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা পাবেন।

চাকরি সংক্রান্ত আরো কিছু লেখা পড়ুন পরামর্শ.কম এ

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।