ভালবাসার সম্পর্কের ভাঙ্গন রোধে যে ৬ টি কাজ থেকে বিরত থাকবেন

timthumbপ্রেমে পড়ার প্রথম কয়েক মাস বেশ আনন্দেই কেটে যায়। এ সময়টায় উভয়ই থাকে মায়ার জালে আবদ্ধ যা পরস্পরের দোষ-ত্রুটিগুলো ঢেকে রাখে। কিন্তু যখন এ মায়া কেটে যায় তখন ধীরে ধীরে এসব চোখে পড়তে শুরু করে। আর এসময়টিতেই মানুষ অবচেতন মনে এমন কিছু ভুল করে ফেলে (subconscious habits) যা ভাঙ্গন সৃষ্টি করে সম্পর্কে, হয়ে যায় ব্রেক-আপ।
ভালবাসার সম্পর্ক ভাঙ্গন রক্ষায় অবশ্যই বিরত থাকা উচিত এমন ৬টি কাজের বিবরণ তুলে ধরা হয়েছে এই লেখাটিতে।

১. সঙ্গীকে পরিবর্তনের জন্য চাপ সৃষ্টি করা (Trying to Improve Your Partner):

পৃথিবীতে পারফেক্ট মানুষ বলে কিছু নেই। সবারই কিছু না কিছু দুর্বল দিক থাকে। সঙ্গীর কথা বলার স্টাইল বা পোশাক পড়ার ধরণ ইত্যাদি পরিবর্তনের জন্য উপদেশ দিতে পারেন কিন্তু কখনোই চাপ সৃষ্টি করবেন না।

২. লোকের সামনে ঝগড়া করা (Fighting in public):

আপনাদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি হতেই পারে, সঙ্গী কোন একটি ভুল করতেই পারে। কিন্তু তাই বলে অচেনা লোক বা বন্ধু বান্ধবের সামনে তার সাথে ঝগড়া করবেন না। এই ঝগড়ায় হয়তো সমস্যার সাময়িক সমাধান হতে পারে, কিন্তু ব্যাপারটি আপনার সঙ্গীর জন্য অপমানজনক। এটি সে কখনোই ভুলতে পারবে না।

৩. পারস্পারিক সমস্যা নিয়ে কথা না বলা (Not talking it out):

দুটি মানুষের মধ্যে সম্পর্ক হলে (relationship) ভালবাসা যেমন থাকবে তেমনি থাকবে বিভিন্ন সমস্যাও। আপনার সঙ্গীর কোন আচরণ পছন্দ না হলে বা কোন ভুল থাকলে তা নিজের মধ্যে চেপে রেখে আশা করবেন না, সে অতীন্দ্রিয় কোন ক্ষমতাবলে তা জেনে যাবে। আপনাদের সমস্যার সমাধান করতে হবে আপনাদেরকেই। তাই দুজনে বসে স্পষ্টভাবে এগুলো নিয়ে আলোচনা করুন।

৪. অতীতের ভুল মনে রাখা (Forgetting to forgive):

শুধু ভালবাসাই নয় বরং যে কোন সম্পর্ক ভাঙ্গনের অন্যতম প্রধান কারণ এটি। মানুষের ভুল থাকবেই, অতীতে অনেক রকম সমস্যাই দুজনের মধ্যে হতে পারে (relationship trouble)। কিন্তু তা দীর্ঘদিন মনে রাখা এবং যে কোন উপলক্ষকে কেন্দ্র করে তা আবার সামনে নিয়ে আসা কখনোই একটি সম্পর্ককে টিকিয়ে রাখতে পারে না।

৫. অবিশ্বাস এবং গুপ্তচরবৃত্তি (Spying):

ভালবাসার সম্পর্ক টিকে থাকার প্রধান শর্ত হলো পারস্পারিক বিশ্বাস (mutual trust)। যখন আপনি আপনার সঙ্গীর উপর গোয়েন্দাগিরি শুরু করেন তখন থেকেই সম্পর্কে চিড় ধরতে শুরু করে। সঙ্গীর মোবাইল, ফেসবুক ইনবক্স তার অজান্তে চেক করার প্রবণতা থেকে থাকলে তা ত্যাগ করুন আজই।

৬. সারাক্ষণ একসাথে থাকা (Doing everything together):

দুজন মানুষের মধ্যে সম্পর্ক থাকা মানেই এই নয় তাদের জগত ওই দুজনের মধ্যেই সীমাবদ্ধ। সারারাত মোবাইলে, ফেসবুকে আলাপ (facebook chat), সারাদিন SMS আদান প্রদানের প্রবণতা আজকাল খুব বেশি দেখা যায়। ফলে একজনের প্রতি অপরজনের আগ্রহ দ্রুত কমতে থাকে। নিজের জন্য কিছু সময় রাখুন। পরিবার এবং বন্ধুরাও আপনার ভালবাসার অংশীদার। তাদের সময় দিন। পরষ্পরের মধ্যে কিছুটা দূরত্ব থাকলে ভালবাসার গভীরতা আরও বৃদ্ধি পায়।

আরো পড়ুন
ব্রেকআপের পর যে ৬টি কাজ থেকে বিরত থাকবেন

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার,গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।