মনে রাখতে চান যেকোন বিষয়? মেনে চলুন ছোট্ট কয়েকটি পরামর্শ

you-can-remember

প্রতিনিয়ত জানাশোনা পড়া ভুলে যাচ্ছেন? বার বার পড়ার পরও মনে রাখতে পারছেন না পড়া বিষয়গুলো?

সমস্যা আপনার নয় সমস্যা আপনার পড়ার কৌশল বা ধরণের।

অনেক সময় যা আপনি টানা সময় ধরে পড়ে মনে রাখতে পারেন না তা হয়তো সামান্য একটু কৌশলিভাবে পড়ার ফলে অল্প সময়ে পড়া সম্পন্ন হওয়ার পাশাপাশি খুব ভালোভাবে মনে রাখতে পারবেন।

শুধু যা দরকার তা হল আপনাকে জানতে হবে সহজ কিন্তু কার্যকরী কিছু পরামর্শ বা ধরণ।

আসুন আজ আপনাদের জানাবো যেকোন বিষয় মনে রাখতে সাহায্য করবে এমন কিছু পরামর্শ:

*মনে রাখতে আপনার পড়া যেকোন বিষয় একবার পড়ার পর এক থেকে দুই দিনের মধ্যে পুনরায় আরেকবার পড়ুন এক কথায় রিভাইজ দিন। এতে করে যা হবে আপনার পড়া বিষয়গুলো ভুলে যাওয়ার সম্ভাবনা কমে যাবে।

*আমরা সাধারণত কোন বিষয়ে পড়তে গেলে গাইড পড়ে থাকি বা বিভিন্ন পাঠ্য বই সহায়িকার সাহায্য নিয়ে থাকি।

কিন্তু কোন বিষয় মনে রাখতে আপনাকে সবচেয়ে বেশী যা সাহায্য করবে তা হল নিজের তৈরি করা কোন নোট।

তাই পড়তে বসে নিজের হাতে নোট রেখে রেখে পড়ুন। দেখবেন আর ভুলে যাওয়ার সমস্যা আপনাকে জ্বালাতন করছে না।


আরো পড়ুনবাড়িয়ে তুলুন আপনার পড়াশোনার দক্ষতা


*নতুন শেখা কোন বিষয়কে আপনার জানা কোন বিষয়ের সাথে জুড়ে দিন। এতে করে যা হবে আপনার নতুন জানা বিষয়টি আর আলাদা করে মনে রাখতে হবেনা।

বরং আপনার জানা বিষয়ের একটি অংশ হিসেবে সেটা আপনার স্মৃতি শক্তিতে গেথে থাকবে।

*মুখস্থ করার প্রবণতা কমিয়ে বুঝে পড়ার অভ্যাস গড়ে তুলুন। মুখস্থ বিদ্যা যেখানে আপনাকে প্রয়োজনের সময় হতাশ করবে সেখানে বুঝে পড়লে আপনার ভুলে যাওয়ার আর কোন সুযোগই থাকবে না।

*বাড়িতে পড়লে মনে থাকছে কিন্তু স্কুলে ঠিক পড়া দেওয়ার সময় ভুলে যাচ্ছেন?


আরো পড়ুনদ্রুত পড়া ও সেটা মনে রাখার জন্য কার্যকর কয়েকটি পরামর্শ


হতাশা আর অবসাদ একপাশে রেখে আপনার যা করণীয় হবে তা হল ক্লাশনোট বানিয়ে ক্লাশের ফাঁকে ফাঁকে সেটাতে চোখ বুলানো। এতে করে ভুলে যাওয়ার সমস্যা দূর হবে।

*খুব বেশী জটিল বা কঠিন কোন বিষয় পড়তে বা মনে রাখতে সমস্যা হলে ছবি, চার্ট বা ডায়াগ্রামে সাজিয়ে পড়ার চেষ্টা করুন। দেখবেন মনে রাখতে আপনাকে আর বেগ পেতে হবেনা।

মনে রাখবেন আপনার মন যতো স্থির আর শান্ত থাকবে আপনার পড়া বিষয়গুলো ততবেশি মনে রাখতে সুবিধা হবে। তাই পড়তে বসে অস্থির মানসিকতার হবেন না।

এক্ষেত্রে আপনি চাইলে মেডিটেশন করতে পারেন। স্মরনশক্তি আর মেধাশক্তি প্রখর ও দৃঢ় করতে মেডিটেশনের বিকল্প হয়না।


সম্পর্কিত পোস্ট: