সম্পর্কের মাধুর্য ধরে রাখুন কয়েকটি ছোট অভ্যাসে

How to Keep Your Relationship Warmস্বীকার করতেই হবে সম্পর্ক কখনো একরকম থাকেনা। একটি সম্পর্ক সুন্দর আর মধুময় রাখতে দুই পক্ষকেই কম বেশী যত্নবান হতে হয়। একটি সম্পর্কে মধুময়তা বজায় রাখতে সম্পর্ককে সক্রিয় রাখতে সঙ্গীর মন বোঝা জরুরী তার চাওয়া পাওয়া নিয়ে ভাবা জরুরী। আর যদি দুজন দুজনের ভালোলাগা ও ভালোবাসা সম্পর্কে  ধারণা রাখতে পারি তাহলে সম্পর্কের মধুময়তা দীর্ঘদিন ধরে রাখা যায়।

ভালো শ্রোতা হোন

আপনার সঙ্গী যখন ভীষণ আগ্রহ নিয়ে আপনাকে কোন গল্প বলছে কিংবা নিজের কোন অভিজ্ঞতা সম্পর্কে আপনার সাথে শেয়ার করছে তখন একজন ভালো শ্রোতার ভূমিকায় নিজেকে রপান্তরিত করুন। আপনার এই ছোট্ট কাজটি আপনার সম্পর্ককে আরো বেশী মধুময় করে তুলবে।

ছাড় দেওয়ার মানসিকতা রাখুন

আপনি যদি সত্যিই আপনার সম্পর্ক সুন্দর আর মধুময় রাখতে চান তাহলে ছাড় দেওয়ার মানসিকতা তৈরি করুন। আপনার সঙ্গীর পছন্দ অপছন্দের মূল্যায়ন করুন তার কাছে কিছু পাওয়ার ইচ্ছে না রেখে তাকে ভালবাসুন। আপনার এই মানসিকতা আপনার সম্পর্কের মধুরতা বাড়িয়ে দেবে।

একসাথে সময় কাটান

চিরদিন নিজেদের সম্পর্ক ভালবাসায় ভরিয়ে রাখতে একসাথে সময় কাটানোর থেকে ভালো কিছু আর হয়না। যত একসাথে সময় কাটাবেন একজন আরেকজনের সম্পর্কে জানতে পারবেন বুঝতে পারবেন। যতবেশি চেনাজানা হবে সম্পর্কের গভীরতা আরো বাড়বে।

ছোট খাটো উপলক্ষগুলো পালন করুন

সম্পর্কের মিষ্টতা বাড়াতে আর আপনার সঙ্গীর প্রতি ভালোবাসার প্রদর্শন স্বরূপ জীবনের ছোট খাটো উপলক্ষগুলো হারিয়ে যেতে দেবেন না বরং সেগুলো পালন করুন। যেমন, দুজনের প্রথম দেখা হওয়ার দিনটি, সে যেদিন প্রথম আপনাকে তুমি করে বলেছিল সেই দিনটি এমন আরো কিছু সময়।

সঙ্গী আর সঙ্গীর কাজের প্রশংসা করুন

আপনার সঙ্গীর প্রশংসা করুন, তার হাসির তার চোখের এমনকি কথা শুনতে আপনি কতোটা পছন্দ করুন সেসব তাকে বলুন। আপনার জন্য করা সামান্য কাজটুকুর জন্য সঙ্গীকে বাহবা দিতে ভুলবেন না। তাকে খুশী রাখুন দেখবেন সেও আপনাকে খুশী রাখবে আর এই খুশির ছটা আপনাদের সম্পর্কের মধুরতা দিন দিন বাড়িয়েই তুলবে।

বেশীরভাগ সম্পর্কগুলোর আন্তরিকতা আর একে অন্যর প্রতি বিরূপ থাকার অন্যতম কারন নিজেদের চেনাশোনার অভাব। তাই সম্পর্কগুলোর মধুরতা দীর্ঘস্থায়ী করতে দুজনের কাছে থাকার চেষ্টা করুন।

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।